মঙ্গলবার, জুন ২৫, ২০১৯

কলারোয়া নিউজ

প্রধান ম্যেনু

সাতক্ষীরার সর্বাধুনিক অনলাইন পত্রিকা

অর্থ আত্মসাতের অভিযোগ অস্বীকার করে কেশবপুরে ইউপি চেয়ারম্যানের সংবাদ সম্মেলন

কপোতাক্ষ নিউজ টোয়েন্টি ফোর ডট কম অনলাইন নিউজ পোর্টালে “কেশবপুরের গৌরীঘোনা ইউপি চেয়ারম্যানের বিরুদ্ধে সরকারী অর্থ আত্মসাতের অভিযোগ” শিরোনামে একটি মিথ্যা, বানোয়াট, ভিত্তিহীন ও উদ্দেশ্যপোনদিত সংবাদ প্রকাশিত হয়। যার প্রতিবাদে কেশবপুর উপজেলার গৌরীঘোনা ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান এস এম হাবিবুর রহমান হাবিব সংবাদ সম্মেলন করে।

বুধবার বিকালে গৌরীঘোনা ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান এস এম হাবিবুর রহমান হাবিব তাঁর দপ্তরে সংবাদ সম্মেলনে লিখিত বক্তব্য পাঠকালে বলেন, জেলা পরিষদ, হাট পেরিফেরী ও ওয়াপদার সম্পত্তিতে বহুপূর্বে গৌরীঘোনা বাজার প্রতিষ্ঠিত হয়। বাজার উন্নয়নে বাজার কর্তৃপক্ষ সেখানে বেশ কিছু আমের চারা রোপন করে। বাজার কমিটির তত্ত্ববধানে গত কয়েক বছর উক্ত আম গাছ গুলিতে আম হয়। আম বিক্রয়ের অর্থ দিয়ে ইউনিয়ন পরিষদ সংলগ্ন মসজিদ ও পার্শ্ববর্তী শশ্বাশানের উন্নয়ন সহ-বাজারের উন্নয়ন করা হয়। সম্প্রতি বাজার কমিটির সাধারণ সম্পাদক উদয় শংকর পাল ৩৬ জন ব্যাবসায়ীর উপস্থিতিতে প্রকাশ্য ডাকের মাধ্যমে ৫০ হাজার ৫ শত টাকায় বিক্রয় করে। উৎপাদন ও আমাপাড়া লেবার বাবদ ৯ হাজার ৪ শত ৫০ টাকা খরচ বাদ দিয়ে বর্তমানে সাধারণ সম্পাদক উদয় শংকর পালের নিকট ৪১ হাজার ৫০ টাকা গচ্ছিত রয়েছে। গত ১১ জুন কপোতাক্ষ নিউজ টোয়েন্টি ফোর ডট কম অনলাইন নিউজ পোর্টালে “কেশবপুরের গৌরীঘোনা ইউপি চেয়ারম্যানের বিরুদ্ধে সরকারী অর্থ আতœসাতের অভিযোগ” শিরোনামে একটি সংবাদ প্রকাশিত হয় যা সম্পূর্ণ মিথ্যা, বানোয়াট, ভিত্তিহীন ও উদ্দেশ্যপোনদিত। সংবাদটিতে আমগাছগুলি বুড়–লী তহশীল অফিস তত্ত্বাবধান করে থাকে এবং প্রতিবছর ৫০ থেকে ৭০ হাজার টাকা সরকারের কোষাগারে জমা হয়ে থাকে। কিন্তু প্রকৃত পক্ষে আমগাছগুলি বাজার কর্তৃপক্ষ তত্ত্বাবধান করে থাকে এবং আদৌ আম বিক্রির কোন টাকা অদ্যবধি সরকারের কোষাগারে জমা হয়নি। বরং পূর্ববর্তী বছরের আম বিক্রির টাকা দিয়ে ইউনিয়ন পরিষদ সংলগ্ন মসজিদ ও পার্শ্ববর্তী শশ্বাশানের উন্নয়ন সহ-বাজারের উন্নয়ন করা হয়েছে। সংবাদটিতে আমাকে ও বাজার কমিটির নেতা উদয় শংকর পাল ও শফিকুল ইসলাম যোগসাজসে আম বিক্রির সমুদয় টাকা আত্মসাত করার কথা বলা হয়েছে। কিন্তু প্রকৃত পক্ষে আম বিক্রির টাকা বাজার কমিটির সাধারণ সম্পাদক উদয় শংকর পালের নিকট গচ্ছিত রয়েছে। যা আত্মসাতের কোন প্রশ্নই উঠে না। আবার প্রকাশিত সংবাদে ইউনিয়নের বিভিন্ন জায়গার খাস জমি আমি আমার পছন্দের ব্যক্তিদের মৌখিকভাবে বন্দবস্তো দিয়ে অর্থ হাতিয়ে নেওয়ার অভিযোগটি আদৌ সত্য নয়। তিনি সংবাদ সম্মেলনের মাধ্যমে কপোতাক্ষ নিউজ টোয়েন্টি ফের ডট কম অনলাইন নিউজ পোর্টালে প্রকাশিত সংবাদের তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানান।

সংবাদ সম্মেলনে ইউপি সদস্য কাজী হামিদার রহমান, ইউপি সদস্য হাফিজুর রহমান, গৌরীঘোনা বাজার কমিটির সাধারণ সম্পাদক উদায় শংকর পাল, প্রাক্তন সভাপতি এস এম শফিকুল ইসলাম প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

একই রকম সংবাদ সমূহ

শার্শায় গ্ৰামবাসিরা নিজেদের টাকা দিয়ে তৈরি করছেন সেতু

যশোরের শার্শা উপজেলার উলাশী জিয়ার খালের উপর নির্মান করা হচ্ছেবিস্তারিত পড়ুন

মনিরামপুরের রাজগঞ্জে ঐতিহ্যবাহী ঘোড়াদৌড় প্রতিযোগিতা

মণিরামপুর উপজেলার রাজগঞ্জের হানুয়ার-গালদার মাঠে ঐতিহ্যবাহী ঘৌড়দৌড় প্রতিযোগীতা অনুষ্ঠিত হয়েছে।বিস্তারিত পড়ুন

শার্শা ও বাগআঁচড়া খাদ্য গুদামে সিন্ডিকেটের মাধ্যমে ধান কেনা হচ্ছে!

যশোরের শার্শা উপজেলার নাভারন ও বাগআঁচড়া খাদ্য গুদামে সরকারী নির্দেশবিস্তারিত পড়ুন

  • কেশবপুরে মৎস্যজীবী ও মৎস্য চাষিদের প্রশিক্ষণ সম্পন্ন
  • কেশবপুর উপজেলা আইন সহায়তা কমিটির সভা
  • শার্শায় আ.লীগের প্রতিষ্ঠা বার্ষিকীতে দোয়া ও আলোচনা সভা
  • কেশবপুরে ডাক্তারের ভুল চিকিৎসায় কলারোয়ার রোগির মৃত্যু ॥ অভিযোগ
  • ঝিকরগাছায় আ.লীগের প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী পালিত
  • কেশবপুরে বর্ণাঢ্য আয়োজনে আ.লীগের প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী পালিত
  • রোগী দেখে ফেরার পথে নিজেই লাশ হলেন সাতক্ষীরার ডা. নুর মোহাম্মদ
  • মালয়েশিয়ায় নিহত রাজগঞ্জের যুবকের লাশ দাফন সম্পন্ন
  • মণিরামপুরের ঝাঁপায় যুবলীগের বিশেষ বর্ধিত সভা
  • কেশবপুরে ডিজিটাল বাংলাদেশ বিনির্মাণে করনীয় শীর্ষক সেমিনার
  • ভারতে ডগ হ্যান্ডেলার কোর্স করে বেনাপোল দিয়ে দেশে ফিরলো বিজিবি প্রতিনিধি দল
  • কেশবপুরের ৪টি ইউনিয়নে আ.লীগের কমিটি ঘোষণা ও পৌর কমিটি বিলুপ্ত
  • error: Content is protected !!