মঙ্গলবার, আগস্ট ২০, ২০১৯

কলারোয়া নিউজ

প্রধান ম্যেনু

সাতক্ষীরার সর্বাধুনিক অনলাইন পত্রিকা

ভাঙ্গা চান্নি আর দুর্গন্ধ-নোংরা পরিবেশে চলছে কলারোয়ার ব্রজবাকসা বাজার

ভাঙ্গা চান্নি আর দুর্গন্ধ-নোংরা ময়লা আবর্জনার স্তুপের মধ্যে চলছে কলারোয়া উপজেলার হেলাতলা ইউনিয়নের ব্রজবাকসা কাঁচা বাজারের কার্যক্রম। বারবার সংস্কার এবং পরিচ্ছন্নতার দাবি জানিয়েও কোন সুরহা পাননি ব্যবসায়ীরা। ফলে ঝুঁকিপূর্ণ চান্নি, নোংরা ও অপরিচ্ছন্ন পরিবেশে চলছে ১৪টি গ্রামের মানুষের দৈনন্দিন নিত্য প্রয়োজনীয় কেনা-বেঁচা।

সরেজমিনে দেখা যায়, কাঁচা বাজারটির ভিতের চারি ধারে দূর্গন্ধময় ময়লার স্তুপ গড়ে উঠেছে। আছে ফেনসিডিলসহ বিভিন্ন মাদকদ্রব্যের চিহ্ন। মেরামতের অভাবে অধিকাংশ চান্নির টিন সেড গুলো নষ্ট হয়ে যাচ্ছে। একটি চান্নি ধ্বংসের পথে যার নিচে জীবনের ঝুঁকি নিয়ে কেনা-বেচা করছে ব্যবসায়ীরা।

মাছ ব্যবসায়ী মুনছুর আলী জানান, প্রতি সপ্তাহের তিনটি হাটে খাজনা দিচ্ছি ২০ টাকা ঝাড়ুদারকে দিচ্ছি ২ টাকা তবুও সংস্কার করার কেহ নেই। পেটের দায়ে পঁচা সবজি, মলমুত্র ও মাদক দ্রব্যের দূর্গন্ধে বসে বেচা কেনা করতে করতে আমরা অসুস্থতায় ভুগছি। দেখার কেউ নেই সংস্লিষ্ট সকলকে বার-বার অবহিত করেও কোন ফল আসেনা।

তরকারি ব্যবসায়ী কওসার আলী গাইন বলেন, এখানে ব্যবসা করার মত পরিবেশই নাই। সামনে বর্ষাকাল বৃষ্টিতে ভিজে কেনা বেচা করা অসম্ভব হয়ে পড়ে। মাথার উপরে কিছুই নাই। নামমাত্র চান্নিতে ব্যবসা করছি। ঝড় বৃষ্টিতে পলিথিন টাঙ্গিয়ে কেনা বেচা করছি। এটি দ্রুত সংস্কার না হলে ব্যবসাই হয়তো বন্ধ হয়ে যাবে।

বিশিষ্ট ব্যবসায়ী আতিয়ার দালাল বলেন, শত বছরের পুরাতন (ঢবঢবীর) বাজারই হিন্দু সম্প্রদায়ের ব্রজেন্দ্রনাথ গাঙ্গুলীর নামানুসারে বর্তমান ব্রজবাকস্ হিসাবে পরিচিতি লাভ করেছে। বর্তমান গড়ে ওঠা ইসলামপুর দাখিল মাদ্রাসার বিস্তৃত জায়গাজুড়ে এখান থেকে ১২যুগ আগে থেকেই সপ্তাহে ৩দিন (রবি, মঙ্গল ও বৃহস্পতিবার) মানুষের আনাগোনায় মুখরিতভাবেই চলতো ঢবঢবির হাট বাজার। ঐ হাট-বাজারকে আরও উন্নয়নের লক্ষ্যে বাংলা ১৩৫০ সালে বিশিষ্ট ব্যবসায়ী আব্দুল হামিদ, আব্দুর রহমান, হাজী আতিয়ার রহমান, আতিয়ার দালাল, আলী বক্স, আবুবকর বদ্দিসহ ১৪টি গ্রামের মানুষের সমন্বয়ে (ঢবঢবির) বাজারকে স্থান্তরিত ও নাম পরিবর্তন করে বর্তমান ব্রজবাকস্ বাজার গঠিত হয়েছে।
এতগুলো সাধারণ খেটে খাওয়া মানুষের আনাগোনা বাজারটিতে কিন্তু নোংরা পরিবেশের জন্য ভয়ংকর সব রোগ-ব্যাধির সম্মুখীন হচ্ছে। পরিষ্কার পরিচ্ছন্নতা থাকলে এলাকাই উন্নয়ন ঘটবে।

স্থানীয় হেলাতলা ইউনিয়ন পরিষদ চেয়য়ারম্যান মোয়াজ্জেম হোসেন জানান, বাজারের অপরিচ্ছন্ন পরিবেশের বিষয়টি আসলে দুঃখজনক, আমি লজ্জিত। কিন্তু উপজেলা হতে বাজার উন্নয়নের জন্য ১০ শতাংশ বরাদ্দ পাওয়ার কথা থাকলেও বিগত তিন বছর ধরে পাচ্ছিনা, যা উপজেলা নির্বাহী অফিসে আটকে আছে। বর্তমান ও পূর্বের নির্বাহী অফিসারদ্বয়কে বার বার অবহিতকরনের পরেও কোন বরাদ্দ বা ফল পায়নি। যে জন্য উন্নয়নের কাজটি করতে পারছিনা। লিখিত অভিযোগের মাধ্যমে (নির্বাহী অফিসারকে) অবগত করে দু-এক দিনের মধ্য সংস্কার করার ব্যাবস্থা নিব।

তবে এ বিষয়ে উপজেলা নির্বাহী অফিসার আরএম সেলিম শাহনেওয়াজ বলেন, বাজারের বিষয়টি চেয়ারম্যান আমাকে অবহিত করেনি। যতদ্রুত সম্ভব সংশ্লিষ্ঠ ইউনিয়ন চেয়ারম্যানের সাথে কথা বলে সংস্কারের ব্যবস্থা করবো।

একই রকম সংবাদ সমূহ

সাতক্ষীরায় এ পর্যন্ত ২৩৯ জন ডেঙ্গু রোগী সনাক্ত

গত ২৪ ঘন্টায় সাতক্ষীরার বিভিন্ন হাসপাতালে আরো ২১ ডেঙ্গু রোগীরবিস্তারিত পড়ুন

কলারোয়ায় মারামারি মামলায় যুবক গ্রেফতার

কলারোয়া থানা পুলিশ বিশেষ অভিযান চালিয়ে মারামারি মামলায় সাইফুল ইসলামবিস্তারিত পড়ুন

কলারোয়ায় ইয়াবাসহ মাদক ব্যবসায়ী গ্রেফতার

কলারোয়া থানা পুলিশ ১০৫ পিচ ইয়াবা ট্যাবলেট সহ একজন মাদকবিস্তারিত পড়ুন

  • সাতক্ষীরায় মাদক ব্যবসায়ীসহ গ্রেফতার ২৮
  • কলারোয়ায় পরিবহনের ধাক্কায় গ্রামপুলিশ আহত
  • কলারোয়ার বালিয়াডাঙ্গায় মাত্র ১কি.মি. রাস্তা সংষ্কারের অভাবে দূর্ভোগ চরমে
  • কলারোয়া সরকারি কলেজ চত্বরে ছাত্রলীগের বৃক্ষায়ণ কর্মসূচি
  • কলারোয়ার হঠাৎগঞ্জ মাদরাসায় হামদ নাথ প্রতিযোগিতা ও আলোচনা সভা
  • ভারি বর্ষণে প্লাবিত কলারোয়ার বিভিন্ন এলাকা
  • কলারোয়ার সুলতানপুরে বঙ্গবন্ধু স্মৃতি ফুটবল টুর্নামেন্টে সোনাবাড়িয়া ফাইনালে
  • কলারোয়ায় ভুয়া সাংবাদিক মাদক ব্যবসায়ী রাজুসহ ৬ যুবক আটক
  • কলারোয়া সীমান্তে এক যুবক আটক
  • কলারোয়ায় চিরনিদ্রায় শায়িত বীর মুক্তিযোদ্ধার স্ত্রী
  • কলারোয়ায় নারী ও পরিবেশ সুরক্ষা কেন্দ্রের সভাপতি কান্তা রেজাকে সংবর্ধনা
  • দেবহাটায় নিজের গড়া রূপসী ম্যানগ্রোভ পর্যটন কেন্দ্র পরিদর্শনে উপসচিব তরিকুল ইসলাম