বৃহস্পতিবার, মে ১৯, ২০২২

কলারোয়া নিউজ

প্রধান ম্যেনু

সাতক্ষীরা, দেশ ও বিশ্বের সকল সংবাদ, সবার আগে

উপকূলে মানুষের জীবনমান স্বচক্ষে দেখলেন ডেনমার্ক এর রাজকুমারী

২৭ এপ্রিল সকালে ডেনমার্কের রাজকুমারী ম্যারি এলিজাবেথ ডোনাল্ডসন জলবায়ু পরিবর্তনের ফলে বিরুপ প্রভাবের স্বীকার উপকূলের মানুষের জীবনযাত্রা দেখতে সাতক্ষীরা জেলার শ্যামনগর উপজেলার মুন্সিগঞ্জে আসেন।
সকাল ১০টার দিকে হেলিকপ্টার যোগে তিনি কক্সবাজার থেকে মুন্সিগঞ্জের মেইন রোডের পাশে তৈরি অস্থায়ী হেলিপ্যাডে অবতরণ করেন।

পরে তিনি কঠোর নিরাপত্তার মধ্য দিয়ে স্থানীয় একটি গেস্ট হাউজে বিশ্রাম নিয়ে মুন্সিগঞ্জ ইউনিয়নের কুলতলী গ্রামে জলবায়ু পরিবর্তনের বিরুপ প্রতিক্রিয়ার শিকার হয়েও শাক-সবজি চাষের অনুকুল পরিবেশ গড়ে তোলা স্থানীয় জনগোষ্ঠীর সাথে মতবিনিময় করেন।
এছাড়া তিনি কুলতলি সাইক্লোন শেল্টারে দূর্যোকালীন সময়ে সেখানে আশ্রয়গ্রহণকারী নারী, শিশু ও প্রসূতিসহ বয়স্কদের বাস্তব অভিজ্ঞতার সাথে পরিচিত হওয়ার চেষ্টা করেন।

এরপর তিনি বুড়িগোয়ালিনী ইউনিয়নের দাতিনাখালী গ্রামে ভাঙন কবলিত বেড়িবাঁধ সহ বার বার সব কিছু হারিয়ে টিকে থাকা পরিবারের সদস্যদের সাথে মত বিনিময় করেন। সুন্দরবন তীরবর্তী কলবাড়ী সংলগ্ন বরসা রিসোর্ট সেন্টারে মধ্যাহ্নভোজ গ্রহণের পর তিনি সুন্দরবনের কলাগাছিয়া টহল ফাঁড়ির বনাঞ্চল ঘুরে দেখার জন্য স্পিড বোর্ট এ রওনা দেন। সুন্দরবন দেখা শেষ করে বিকাল সাড়ে ৪টায় ম্যারী এলিজাবেথ ডোনাল্ডসন হেলিকপ্টার যোগে ঢাকার উদ্দেশ্যে শ্যামনগর ত্যাগ করেন।

এদিকে, এলাকায় রীতিমত উৎসুক জনতার ভিড় ছিল। কিন্তু প্রশাসনের কড়া নিরাপত্তার জন্য মানুষ দূর থেকে দেখার চেষ্টা করেন। গোটা এলাকাজুড়ে নিচ্ছিদ্র নিরাপত্তা বলয়ে ঢাকা ছিল।

বাংলাদেশের অকৃত্রিম বন্ধু রাষ্ট্র ডেনমার্ক। জলাবায়ু পরিবর্তনে নেগোশিয়েনে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখে ডেনমার্ক। জলবায়ু পরিবর্তনের কারণে উপকূলে বিরুপ প্রভাব পড়েছে। এই প্রভাবে টিকে থাকতে প্রয়োজন অভিযোজন কৌশল।
ডেনমার্ক এর রাজ কুমারী উপকূল ঘুরে জলবায়ু পরিবর্তনের বাস্তব চিত্র দেখেছেন এবং বিশ্বের কাছে তুলে ধরবেন এই ধারণা লালন করছেন উপকূলের ভুক্তভোগী জনগণ। তারা আশা করেন রাজ কুমারী হয়ত উপকূলের মানুষের ভাগ্যের চাকা একটু ঘুরাতে পারেন।

একই রকম সংবাদ সমূহ

বন্যায় সিলেটবাসীর দুর্দশা লাঘবে ত্রাণসহ সবধরনের সহযোগিতা দেয়া হবে- পররাষ্ট্রমন্ত্রী

আকস্মিক বন্যায় সিলেটবাসীর দুর্দশা লাঘবের জন্য সরকারের পক্ষ হতে ত্রাণসহ সবধরনের সহযোগিতাবিস্তারিত পড়ুন

অ্যান্টিবায়োটিক চেনাতে মোড়কে লাল রং দিয়ে চিহ্ন

অ্যান্টিবায়োটিক চেনা সহজ করতে এবার মোড়কে (প্যাকেট) লাল রং দিয়ে চিহ্ন দেওয়ারবিস্তারিত পড়ুন

বিদ্যুতের দাম বাড়ানোর সুপারিশ

বিদ্যুতের দাম ৫৭ দশমিক ৮৩ শতাংশ বাড়ানোর সুপারিশ করেছে বাংলাদেশ এনার্জি রেগুলেটরিবিস্তারিত পড়ুন

  • সরিষা ও ধানের কুঁড়ার তেলের উৎপাদন বাড়ানোর পরিকল্পনা
  • ৫ জুন বসছে বাজেট অধিবেশন
  • যেসব হজযাত্রী হজে যেতে পারছেন না তাদের নিবন্ধনে জমা করা অর্থ ফেরত যেভাবে
  • কক্সবাজারের প্রাকৃতিক সৌন্দর্য এবং জীববৈচিত্র্য অটুট রাখার তাগিদ প্রধানমন্ত্রীর
  • চারজন অতিরিক্ত সচিবকে সচিব পদে পদোন্নতি প্রদান
  • নন-ব্যাংক আর্থিক প্রতিষ্ঠান খাততে শৃঙ্খলার মধ্যে আনতে হবে : শিল্পমন্ত্রী
  • সারাদেশে নদীভাঙন রোধে পর্যায়ক্রমে স্থায়ী প্রকল্প হচ্ছে : পানি সম্পদ উপ-মন্ত্রী
  • এবার বাংলাদেশ ব্যাংক কর্মকর্তাদের বিদেশ ভ্রমণ বন্ধ
  • ঠাকুরগাঁওয়ে ২৭ আগ্নেয়াস্ত্রসহ বিপুল সংখ্যক গুলি উদ্ধার
  • পি কে হালদারকে দেশে ফেরাতে হাইকোর্টের শুনানি ১২ জুন
  • দ্রব্যমূল্যের দাম বেড়েছে আন্তর্জাতিক পরিস্থিতির কারণে : প্রধানমন্ত্রী
  • শেখ হাসিনা না থাকলে নিজ অর্থায়নে পদ্মা সেতু হতো না, জুনেই চালু : ওবায়দুল কাদের
  • error: Content is protected !!