রবিবার, জুলাই ১২, ২০২০

কলারোয়া নিউজ

প্রধান ম্যেনু

সাতক্ষীরার সর্বাধুনিক অনলাইন পত্রিকা

কেশবপুরের ইউএনও’কে ষড়যন্ত্রমূলক বদলির বিরুদ্ধে প্রতিবাদ মিছিল ও সমাবেশ

যশোরের কেশবপুরের উপজেলা নির্বাহী অফিসার মো.মিজানূর রহমানের ষড়যন্ত্রমূলক অপসারণের বিরুদ্ধে কেশবপুরের সচেতন নাগরিক বৃন্দের ব্যানারে (১৬ নভেম্বর) শনিবার সকালে মুক্তিযোদ্ধা শহীদ দৌলত বিশ্বাস চত্বরে প্রতিবাদ সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়েছে।

সমাবেশের আগে উপজেলা চত্বর থেকে মিছিল বের হয়ে শহরের প্রধান প্রধান সড়ক প্রদক্ষিণ করে।

বাংলাদেশ হিন্দু বৌদ্ধ খ্রিস্টান ঐক্য পরিষদের কেশবপুর উপজেলা শাখার সাধারণ সম্পাদক অ্যাডভোকেট মিলন মিত্রের সঞ্চালনায় প্রতিবাদ সমাবেশে বক্তব্য রাখেন বাংলাদেশ হিন্দু বৌদ্ধ খ্রিস্টান ঐক্য পরিষদের কেশবপুর উপজেলা শাখার সভাপতি অবসরপ্রাপ্ত অধ্যাপক অসীত মোদক, উপজেলা আওয়ামীলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক পৌর কাউন্সিলর শেখ এবাদত সিদ্দিক বিপুল, ইউপি চেয়ারম্যান মনোয়ার হোসেন, হাবিবুর রহান, উপজেলা আওয়ামীলীগের দফতর সম্পাদক মফিজুর রহমান মফিজ, কেশবপুর উপজেলা যুবলীগের আহবায়ক ও প্যানেল মেয়র বিশ্বাস শহীদুজ্জামান শহীদ, বাংলাদেশ দলিত পরিষদের কেন্দ্রীয় কমিটির সমন্বয়কারী উজ্জ্বল দাস, বাংলাদেশ দলিত পরিষদের কেশবপুর উপজেলা শাখার সভাপতি সুজন দাস, সাবেক ভাইস চেয়ারম্যান আব্দুল লতিফ রানা, মুক্তিযোদ্ধা কালীপদ মন্ডল, কেশবপুর উপজেলা আওয়ামীলীগের সহ-দপ্তর সম্পাদক মনোজ তরফদার, পৌর আওয়ামীলীগের যুগ্ম আহবায়ক কাউন্সিলর জামাল উদ্দীন সরদার, হিন্দু বৌদ্ধ খ্রিষ্টান ঐক্য পরিষদের নেতা রাজীব চৌধুরী, ইউপি সদস্য মৃনাল কান্তি দাস প্রমুখ।

প্রতিবাদ সমাবেশে বক্তারা কেশবপুরের উপজেলা নির্বাহী অফিসার মো. মিজানূর রহমানের ষড়যন্ত্রমূলক অপসারণের বিরুদ্ধে তীব্র নিন্দা ও স্বপদে বহাল রাখার দাবী জানান।

গত শুক্রবার (১৫ নভেম্বর) সন্ধ্যায় খুলনার বিভাগীয় কমিশনার ড. আনোয়ার হোসেন জানান, ‘জনস্বার্থে মিজানূর রহমানকে মাগুরা জেলার মোহাম্মদপুরে বদলি করা হয়েছে।’

এর আগে, ইউএনও মিজানূর রহমান ২০১৭ সালের ২২ আগস্ট কেশবপুরে যোগদান করেছিলেন। দীর্ঘ দুই বছর তিন মাস দায়িত্ব পালন করেছেন। চলতি বছরের মার্চ মাসে অনুষ্ঠিত উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে কেশবপুরে নৌকা প্রতীকের প্রার্থীর সরাসরি বিরোধিতা করে স্বতন্ত্র প্রার্থীর পক্ষ নেয়ার অভিযোগ করেছিলেন প্রার্থী এবং উপজেলা আওয়ামী লীগ নেতারা। এতে নির্বাচন কমিশনের নির্দেশে ভোট চলাকালীন এক সপ্তাহ মিজানূর রহমানকে কেশবপুর থেকে প্রত্যাহার করে খুলনা বিভাগীয় কমিশনারের কার্যালয়ে সংযুক্ত করা হয়। তবুও স্বতন্ত্র প্রার্থী (আনারস) বিজয়ী হওয়ায় নৌকার প্রার্থী অভিযোগ করে জানিয়েছিলেন, ইউএনও’র ভোট মেকানিজমের প্রভাব ভোটের ওপর পড়েছে।

একই রকম সংবাদ সমূহ

ফকিরহাটে করোনা আক্রান্ত হয়ে পল্লী চিকিৎসক ও গ্রাম পুলিশ সহ মৃত্যু-৩

ফকিরহাটে করোনা আক্রান্ত হয়ে মারা গেছেন উপজেলার সাতবাড়িয়া গ্রামের ইয়াদবিস্তারিত পড়ুন

করোনার ভুয়া সনদ,অবশেষে ডা. সাবরিনা গ্রেফতার

করোনাভাইরাস পরীক্ষা না করে মনগড়া রিপোর্ট দেয়ার অভিযোগে ডা. সাবরিনাবিস্তারিত পড়ুন

করোনা ও আম্পান মোকাবেলায় কাজ করে যাচ্ছে সেনাবাহিনী

করোনা ও আম্পান মোকাবেলায় সক্রিয়ভাবে কাজ করে যাচ্ছে সেনাবাহিনী। করোনায়বিস্তারিত পড়ুন

  • ১২জুলাই: যবিপ্রবির ল্যাবে ৮০জনের করোনা পজিটিভ, সাতক্ষীরায় ৪৪
  • পরিবার পরিকল্পনা, মা ও শিশু স্বাস্থ্য কার্যক্রমে তালার জালালপুর ইউনিয়ন পরিষদ খুলনা বিভাগে শ্রেষ্ঠ নির্বাচিত
  • ফকিরহাটে বিশ্ব জনসংখ্যা দিবস উপলক্ষে ভার্চুয়াল আলোচনা
  • ১১জুলাই: যবিপ্রবির ল্যাবে ৬০ জনের করোনা পজিটিভ, সাতক্ষীরার ১৫ জন
  • যবিপ্রবির ল্যাবে ১০ জুলাই ৫৯ জনের কোভিড-১৯ পজিটিভ
  • উপকূলের সম্মুখযোদ্ধা শাহিন
  • খুলনা বিভাগে আরও ২৬১ জন কোভিড রোগী শনাক্ত
  • সেনাবাহিনীর উদ্যোগে গর্ভবতী মায়েদের চিকিৎসাসহ জনমুখী সেবা
  • করোনাকালে জনসচেতনতামূলক কার্যক্রমে যশোর সেনানিবাস
  • করোনা ও আম্পান: দেশবাসীর সুরক্ষায় বিরামহীন কাজে সেনাবাহিনী
  • বাগেরহাট জেলায় করোনায় আক্রান্তের শীর্ষে ফকিরহাট নতুন সনাক্ত ১৩
  • রাজবাড়ীতে সেনাবাহিনী কর্তৃক গর্ভবতী মায়েদের বিনামূল্যে চিকিৎসা সেবা