বুধবার, ফেব্রুয়ারি ২১, ২০২৪

কলারোয়া নিউজ

প্রধান ম্যেনু

সাতক্ষীরা, দেশ ও বিশ্বের সকল সংবাদ, সবার আগে

নির্বাক পানি উন্নয়ন বোর্ড!

ত্রুটিপুর্ণ স্লুইসগেট: শার্শার দক্ষিনাঞ্চল প্লাবিত

ত্রুটিপুর্ন স্লুইস গেটের কারণে ভারতের ইছামতি নদীর জোয়ারের পানিতে শার্শার দক্ষিনাঞ্চলের ৫টি ইউনিয়ন প্লাবিত। হাজার হাজার হেক্টর জমির ফসল পানির নিচে। পুটখালী, গোগা, উলাশী বাগআঁচড়া ও কায়বাসহ ৫টি ইউনিয়নের প্রায় ৩ হাজার হেক্টর জমির ফসল পানির নিচে তলিয়ে রয়েছে।

ইছামতির সাথে সংযুক্ত রুদ্রপুর ও খলসী খালে ত্রুটিপুর্ন স্লুইসগেট নির্মানের ফলে ভারতের সাথে সীমান্ত নির্ধারণকারী ইছামতি নদীর পানিতে এলাকা প্লাবিত হচ্ছে বলে চাষীদের অভিযোগ।

রুদ্রপুর খালে দু’টি ও খলশী খালে একটি স্লুইসগেট রয়েছে। ত্রুটিপুর্ন থাকায় তা কাজে আসছে না। ফলে ঐ খাল দু’টি দিয়েই ভারতের পানি ঢুকে শার্শার বিস্তীর্ন অঞ্চল প্লাবিত করছে।

উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা শৌতম কুমার শীল জানান, ৫টি ইউনিয়নে চলতি মৌসুমে ২০ হাজার ১৩১ হেক্টর জমিতে ফসল লাগানো হয়েছে। এতে ভারতের উজানের পানিতে ২ হাজার ৯ শ’ ৭০ হেক্টর জমির ধানপাট তরিতরকারিসহ সবজী ফসল তলিয়ে গেছে।

সবচেয়ে বেশি ক্ষতি হয়েছে পুটখালী ইউনিয়নে। এখানে ৪০০ হেক্টর জমির ফসল পানিতে তলিয়ে রয়েছে। কায়বায় ৩৫০ হেক্টর, গোগায় ২২৫ হেক্টর, বাগআঁচড়ায় ২৫০ হেক্টর ও উলশীতে ১২৫ হেক্টর জমির ফসল ভারতের উজানের পানিতে ক্ষতিগ্রস্থ্য হয়েছে।

তিনি বলেন, পানি এখনো বৃদ্ধি পাচ্ছে যে কারণে ক্ষতির পরিমাণ আরো বাড়তে পারে।

তিনি আরো বলেন, পানি আটকানোর বিষয়টি সম্পূর্ণ পানি উন্নয়ন বোর্ডের দায়িত্ব, এতে কৃষি বিভাগের কোন হাত নেই।

উপজেলা নির্বাহী অফিসার পুলক কুমার মন্ডল বলেন, আমি স্থানীয় চেয়ারম্যানদের মুখে শুনেছি ভারতের পানি রুদ্রপুর ও খলশী খাল দিয়ে ঢুকে ফসলের ক্ষতি করছে।

তিনি আরো বলেন, আমি এসিল্যান্ড ও ইঞ্জিনিয়ার সাহেবকে সাথে নিয়ে আজ মঙ্গলবার সকালে পুটখালী ও বারোপোতার বিভিন্ন অঞ্চল পরিদর্শন করেছি। এসময় পানির বাধা সৃষ্টি করতে পারে এমন ধরনের ৪টি জালপাটা অপসারণ করা হয়েছে এবং জালপাটা দিয়ে মাছ ধরায় ১ জনকে দুই হাজার টাকা জরিমানা করা হয়েছে।

তিনি বলেন, ইছামতি নদীর পানির সমস্যাটা আন্তর্জাতিক ব্যাপার। তবে পানি উন্নয়ন বোর্ড ইচ্ছা করলে এর সমাধানের পথ খুজে বের করতে পারে।

কয়েকজন চাষী জানিয়েছেন, রুদ্রপুর ও খলশী খালে পাম্পসহ সয়ংক্রিয় গেট নির্মান করলে এর স্থায়ী সমাধান হবে এবং চাষীরা বারো মাস ঘরে ফসল তুলতে পারবেন।

একই রকম সংবাদ সমূহ

মনিরামপুরে মটরশুটি ক্ষেতে বিষ প্রয়োগে ৪শ’ কবুতর হত্যার অভিযোগ

হেলাল উদ্দিন, মনিরামপুর : যশোরের মনিরামপুরে মটরশুটি ক্ষেতে বিষ দিয়ে প্রায় চারশতবিস্তারিত পড়ুন

কেশবপুরে কপোতাক্ষ নদের জলাবদ্ধতা দূরীকরণ প্রকল্পের কর্মশালা অনুষ্ঠিত

এস আর সাঈদ, কেশবপুর (যশোর): যশোরের কেশবপুর উপজেলা পরিষদ সভাকক্ষে কপোতাক্ষ নদেরবিস্তারিত পড়ুন

কেশবপুরে কিশোর-কিশোরী ক্লাবের ক্রীড়া-সাংস্কৃতিক প্রতিযোগিতার পুরস্কার বিতরণ

এস আর সাঈদ, কেশবপুর (যশোর): কেশবপুর উপজেলা প্রশাসন ও উপজেলা মহিলা বিষয়কবিস্তারিত পড়ুন

  • মনিরামপুরে সড়ক দুর্ঘটনায় অবসরপ্রাপ্ত সেনা কর্মকর্তা নিহত
  • কলারোয়া সরকারি কলেজের সুবর্ণজয়ন্তী রেজিস্ট্রেশন সম্পন্ন, আশানুরূপ সাড়া
  • বেনাপোলে শিশু ধর্ষণের অভিযোগে যুবক গ্রেফতার
  • জনপ্রতিনিধিদের বাড়িতে বাড়িতে তল্লাশি, যা বলছে যশোর পুলিশ
  • শার্শায় মহাসড়কে দাপিয়ে বেড়াচ্ছে অবৈধ মাটিবাহী ট্রাক্টর!
  • শিক্ষার্থীদের ফুল-ক্যাপ দিয়ে নাভারনে হাইওয়ে পুলিশের ‘সেবা সপ্তাহ’
  • কুল চাষ করে স্বাবলম্বী হয়েছেন শার্শার মিজানুর গাজী
  • কলারোয়া সরকারি কলেজের সুবর্ণজয়ন্তী জাঁকজমক মিলনমেলায় রূপ দিতে মতবিনিময়
  • শার্শার বেলতলায় জমে উঠেছে মৌসুমী ফল কুলের বাজার
  • শার্শায় বিভিন্ন মামলায় ওয়ারেন্টভুক্ত ১৫ আসামি গ্রেফতার
  • শার্শার ইউএনও’র অসদাচরণে সংবাদ বর্জনের ঘোষণা সাংবাদিকদের
  • মনিরামপুরে চাঁদাবাজি মামলায় ৩ জনের জামিন নামঞ্জুর, জেল হাজতে প্রেরণ
  • error: Content is protected !!