সোমবার, ফেব্রুয়ারি ৬, ২০২৩

কলারোয়া নিউজ

প্রধান ম্যেনু

সাতক্ষীরা, দেশ ও বিশ্বের সকল সংবাদ, সবার আগে

নির্বাক পানি উন্নয়ন বোর্ড!

ত্রুটিপুর্ণ স্লুইসগেট: শার্শার দক্ষিনাঞ্চল প্লাবিত

ত্রুটিপুর্ন স্লুইস গেটের কারণে ভারতের ইছামতি নদীর জোয়ারের পানিতে শার্শার দক্ষিনাঞ্চলের ৫টি ইউনিয়ন প্লাবিত। হাজার হাজার হেক্টর জমির ফসল পানির নিচে। পুটখালী, গোগা, উলাশী বাগআঁচড়া ও কায়বাসহ ৫টি ইউনিয়নের প্রায় ৩ হাজার হেক্টর জমির ফসল পানির নিচে তলিয়ে রয়েছে।

ইছামতির সাথে সংযুক্ত রুদ্রপুর ও খলসী খালে ত্রুটিপুর্ন স্লুইসগেট নির্মানের ফলে ভারতের সাথে সীমান্ত নির্ধারণকারী ইছামতি নদীর পানিতে এলাকা প্লাবিত হচ্ছে বলে চাষীদের অভিযোগ।

রুদ্রপুর খালে দু’টি ও খলশী খালে একটি স্লুইসগেট রয়েছে। ত্রুটিপুর্ন থাকায় তা কাজে আসছে না। ফলে ঐ খাল দু’টি দিয়েই ভারতের পানি ঢুকে শার্শার বিস্তীর্ন অঞ্চল প্লাবিত করছে।

উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা শৌতম কুমার শীল জানান, ৫টি ইউনিয়নে চলতি মৌসুমে ২০ হাজার ১৩১ হেক্টর জমিতে ফসল লাগানো হয়েছে। এতে ভারতের উজানের পানিতে ২ হাজার ৯ শ’ ৭০ হেক্টর জমির ধানপাট তরিতরকারিসহ সবজী ফসল তলিয়ে গেছে।

সবচেয়ে বেশি ক্ষতি হয়েছে পুটখালী ইউনিয়নে। এখানে ৪০০ হেক্টর জমির ফসল পানিতে তলিয়ে রয়েছে। কায়বায় ৩৫০ হেক্টর, গোগায় ২২৫ হেক্টর, বাগআঁচড়ায় ২৫০ হেক্টর ও উলশীতে ১২৫ হেক্টর জমির ফসল ভারতের উজানের পানিতে ক্ষতিগ্রস্থ্য হয়েছে।

তিনি বলেন, পানি এখনো বৃদ্ধি পাচ্ছে যে কারণে ক্ষতির পরিমাণ আরো বাড়তে পারে।

তিনি আরো বলেন, পানি আটকানোর বিষয়টি সম্পূর্ণ পানি উন্নয়ন বোর্ডের দায়িত্ব, এতে কৃষি বিভাগের কোন হাত নেই।

উপজেলা নির্বাহী অফিসার পুলক কুমার মন্ডল বলেন, আমি স্থানীয় চেয়ারম্যানদের মুখে শুনেছি ভারতের পানি রুদ্রপুর ও খলশী খাল দিয়ে ঢুকে ফসলের ক্ষতি করছে।

তিনি আরো বলেন, আমি এসিল্যান্ড ও ইঞ্জিনিয়ার সাহেবকে সাথে নিয়ে আজ মঙ্গলবার সকালে পুটখালী ও বারোপোতার বিভিন্ন অঞ্চল পরিদর্শন করেছি। এসময় পানির বাধা সৃষ্টি করতে পারে এমন ধরনের ৪টি জালপাটা অপসারণ করা হয়েছে এবং জালপাটা দিয়ে মাছ ধরায় ১ জনকে দুই হাজার টাকা জরিমানা করা হয়েছে।

তিনি বলেন, ইছামতি নদীর পানির সমস্যাটা আন্তর্জাতিক ব্যাপার। তবে পানি উন্নয়ন বোর্ড ইচ্ছা করলে এর সমাধানের পথ খুজে বের করতে পারে।

কয়েকজন চাষী জানিয়েছেন, রুদ্রপুর ও খলশী খালে পাম্পসহ সয়ংক্রিয় গেট নির্মান করলে এর স্থায়ী সমাধান হবে এবং চাষীরা বারো মাস ঘরে ফসল তুলতে পারবেন।

একই রকম সংবাদ সমূহ

যশোর-সাতক্ষীরাঞ্চলের কুল যাচ্ছে দেশজুড়ে

দেশের দক্ষিণ-পশ্চিমাঞ্চলের সর্ববৃহৎ মৌসুমি ফল আম ও কুলের পাইকরি হাট সাতক্ষীরার প্রবেশদ্বারবিস্তারিত পড়ুন

গেম খেলার ওয়েবসাইটে ঢুকে ফতুর হচ্ছে যশোরের রাজগঞ্জের যুবকেরা

ওয়েবসাইটে গেম খেলে হাজার হাজার টাকা ইনকামের লোভনীয় অফার দেখিয়ে ফেসবুকের মাধ্যমেবিস্তারিত পড়ুন

যশোরের শার্শার বেলতলায় জমে উঠেছে মৌসুমী ফল কুলের বাজার

যশোরের শার্শা উপজেলার বেলতলা বাজারে বাণিজ্যিক ভাবে জমে উঠেছে মৌসুমী ফল কুলের(বরুই)বিস্তারিত পড়ুন

  • শার্শার বাগআঁচড়ায় এশিয়ান টিভির ১০ম প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী পালিত
  • স্নাতক পাশ করেই নার্সারী থেকে মাসিক আয় ৫ লাখ টাকা
  • রাজগঞ্জে হাইস্কুলে বিদ্যা ও জ্ঞানের দেবী সরস্বতী পূঁজা অনুষ্ঠিত
  • যশোরের শার্শায় ৭০টি স্বর্ণের বারসহ ২ পাচারকারী আটক
  • শার্শায় এই প্রথম লাঠি মরিচ চাষে স্মার্ট কৃষক রাজার সফল্য
  • যশোরে তিনদিন ব‍্যাপী “ফুল উৎসব” অনুষ্ঠিত
  • মণিরামপুরে ভ্যানচালক তরুণের ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার
  • শার্শা সীমান্তে ৫ কোটি ৯০ লাখ টাকার স্বর্ণসহ পাচারকারী আটক
  • মণিরামপুরে মোটরসাইকেলে প্রাণ গেলো সদ্য এসএসসি পাশ ছাত্রের
  • কেশবপুরের সাগরদাঁড়ীতে মধুসূদন সংস্কৃতি বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিষ্ঠার দাবিতে মানববন্ধন
  • বেনাপোল সীমান্তে বিজিবি-বিএসএফ’র সীমান্ত সম্মেলন অনুষ্ঠিত
  • কনকনে শীতেও ইরি-বোরো ধানের চারা রোপণে ব্যস্ত রাজগঞ্জের চাষিরা
  • error: Content is protected !!