সোমবার, অক্টোবর ৩, ২০২২

কলারোয়া নিউজ

প্রধান ম্যেনু

সাতক্ষীরা, দেশ ও বিশ্বের সকল সংবাদ, সবার আগে

উপকূলের জন্য ‘একটি বাড়ি-একটি শেল্টার হোম’প্রকল্প গ্রহণের দাবি

দুর্যোগে ক্ষয়ক্ষতি কমাতে ‘একটি বাড়ি-একটি খামার’প্রকল্পের আদলে উপকূলে ‘একটি বাড়ি-একটি শেল্টার হোম’প্রকল্প গ্রহণের দাবি জানিয়েছেন নাগরিক সমাজের প্রতিনিধিরা।

তারা বলেছেন, জলবায়ু পরিবর্তনের ক্ষতিকর প্রভাবের কারণে উপকূলীয় জনজীবনে সংকট প্রতিনিয়ত বাড়ছে। সুপার সাইক্লোন সিডর, আইলা ও আম্ফানের মতো দুর্যোগ সংকট আরো বাড়িয়ে দিয়েছে। এই সংকট মোকাবিলায় নতুন আশ্রয় কেন্দ্র নির্মাণের পাশাপাশি উপকূলের সকল বাড়িকে আশ্রয় কেন্দ্রে পরিণত করতে হবে।

সোমবার (১২ সেপ্টেম্বর ২০২২) জাতীয় প্রেসক্লাবের সামনে বেসরাকরী সংস্থা ‘লিডার্স’এবং নাগরিক সংগঠন সুন্দরবন ও উপকূল সুরক্ষা আন্দোলন আয়োজিত মানববন্ধন ও সমাবেশে এই দাবি জানানো হয়। সুন্দরবন ও উপকূল সুরক্ষা আন্দোলনের সমন্বয়ক নিখিল চন্দ্র ভদ্র-এর সভাপতিত্বে সমাবেশে বক্তৃতা করেন নৌ সড়ক ও রেলপথ রক্ষা জাতীয় কমিটির সাধারণ সম্পাদক আশীষ কুমার দে, ঢাকা রিপোর্টার্স ইউনিটির সাবেক সাধারণ সম্পাদক রাজু আহমেদ, স্ক্যান সাধারণ সম্পাদক মনিরুজ্জামান মুকুল, ওয়াটারকিপারস বাংলাদেশের প্রতিনিধি মো. নূর আলম শেখ, সচেতন সংস্থার সাধারণ সম্পাদক সাকিলা পারভীন, ইমক্যাব নেতা আমিনুল হক ভূইয়া, লিডার্সের কর্মসূচী ব্যবস্থাপক মো. ইকবাল ফারুক, ফেইথ ইন একশনের কর্মসূচী সমন্বয়কারী তীমন বাড়ই, সমাজ কল্যাণ ও উন্নয়ন সংস্থা (স্কাস)’র এস এম মামুন, শহীদ আলীম সাহিত্য সংসদের সাধারণ সম্পাদক সানজিদুল হাসান প্রমূখ।

সমাবেশে বক্তারা বলেন, ভৌগলিক অবস্থান, ঘন ঘন প্রাকৃতিক দূর্যোগ, ভঙ্গুর অবকাঠামো, দারিদ্রতা, দীর্ঘমেয়াদী লবণাক্ততা, সংকটাপন্ন কৃষি, প্রভৃতির কারণে উপকূলীয় এলাকার মধ্যে সাতক্ষীরা, খুলনা ও বাগেরহাট সবচেয়ে ঝুঁকিপূর্ণ। ওই অঞ্চলের মানুষ বাঁচার স্বপ্ন হারিয়ে ফেলছে। ওদেরকে সেই স্বপ্ন ফিরিয়ে দিতে হবে। ওই এলাকাকে বিশেষ ঝুঁকিপূর্ণ এলাকা বা জলবায়ু ঝুঁকিপূর্ণ এলাকা ঘোষণা করে সমন্বিত কর্মপরিকল্পনা গ্রহণ করতে হবে। তারা আরো বলেন, উপকূলের ঘরবাড়িগুলো দুর্যোগ সহনশীল করে গড়ে তুলতে হবে। এজন্য বিশেষ প্রকল্প গ্রহণ করে সেই প্রকল্পের মাধ্যমে দুর্যোগ সহনশীল মজবুত ঘর নির্মাণে সাধারণ মানুষকে প্রয়োজনীয় সহায়তা দিতে হবে।

উপকূলীয় অঞ্চলের মানুষদের জীবনমান উন্নয়নে কার্যকর পদক্ষেপ গ্রহণের দাবি জানিয়ে বক্তারা বলেন, জলবায়ু পরিবর্তনের ক্ষতিকর প্রভাব মোকাবিলায় অভিযোজন প্রক্রিয়া বাড়াতে হবে। আগামীতে সরকারের প্রকল্প গ্রহণের ক্ষেত্রে দূর্যোগের ঝুঁকিতে থাকা উপকূলের মানুষের স্বার্থকে প্রাধান্য দিতে হবে। বন্যা ও ঘূর্ণিঝড়ে ক্ষতিগ্রস্থ বাঁধ নির্মাণ করতে হবে। বাঁধ রক্ষণাবেক্ষণে জরুরী তহবিল গঠন ও বাঁধ ব্যবস্থাপনায় স্থানীয় সরকারকে সম্পৃক্ত করতে হবে। সুপেয় পানির স্থায়ী সমাধান করতে হবে। টেকসই বেড়িবাঁধ নির্মাণ প্রকল্পসহ সুন্দরবন উপকূলে নেওয়া সরকারের উন্নয়ন প্রকল্প বাস্তবায়নে স্বচ্ছতা ও জবাবদিহিতা নিশ্চিত করার আহ্বান জানান তারা।

একই রকম সংবাদ সমূহ

কালিগঞ্জে পুলিশের অভিযানে স্বর্ণালংকার ও নগদ টাকা উদ্ধারসহ আটক-১

সাতক্ষীরার কালিগঞ্জের বিষ্ণুপুর ইউনিয়নের মুকুন্দমধুসূদনপুর গ্রামের আব্দুর রাজ্জাক সানার বাড়িতে গত ২৪বিস্তারিত পড়ুন

পাগলা মসজিদের দানবাক্সে ১৫ বস্তা টাকা

কিশোরগঞ্জের পাগলা মসজিদের দানবাক্স খোলা হয়েছে। এবার ২ মাস ২৯ দিন পরবিস্তারিত পড়ুন

সাতক্ষীরায় ভবনের লবনাক্ততা দূর করার উপায় নিয়ে কর্মশালা অনুষ্ঠিত

সাতক্ষীরায় ভবনের লবনাক্ততা দূর করার উপায় নিয়ে এক কর্মশালা অনুষ্ঠিত হয়েছে। শুক্রবারবিস্তারিত পড়ুন

  • আশাশুনি কৃষি কর্মকর্তাদের সমন্বয় সভা অনুষ্ঠিত
  • নিত্যপণ্যের দামের ঊর্ধ্বগতিতে দিশেহারা সাধারণ মানুষ, বিপাকে নিম্নবিত্তরা
  • উন্নয়ন অব্যাহত রাখতে শেখ হাসিনাকে ক্ষমতায় আনতে হবে : প্রতিমন্ত্রী স্বপন ভট্টাচার্য্য
  • নড়াইলের মধুমতীতে ভাঙনের মুখে সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়
  • জেলা পর্যায়ে শ্রেষ্ঠ কলারোয়ার সহকারী শিক্ষা অফিসার হুমায়ুন কবির ও শ্রেষ্ঠ কাব শিক্ষক অনুপ কুমার ঘোষ
  • আশাশুনির তোহিদ মুক্তিযোদ্ধা জিয়াউর রহমান হলের ছাত্রলীগের সহ-সম্পাদক
  • আশাশুনিতে ভ্রাম্যমান আদালতে ৩ সার ব্যবসায়ীকে জরিমানা
  • সাতক্ষীরা জেলা জার্নালিস্ট এসোসিয়েশনের তালা উপজেলা শাখার কমিটি গঠন
  • ট্রেনে কাটা পড়ে বালিয়াডাঙ্গা বাজার ব্যবসায়ীর মৃত্যু
  • সাতক্ষীরায় বাংলাদেশ মহিলা পরিষদের উদ্যোগে মানববন্ধন ও সম্প্রীতি সভা অনুষ্ঠিত
  • সাতক্ষীরায় বিশ্ব হার্ট দিবস উপলক্ষে বর্ণাঢ্য র‍্যালি ও সেমিনার
  • তালায় ব্রী ধান ৭৫ জাতের আগাম রোপণে সাফল্য পেয়েছে কৃষকেরা
  • error: Content is protected !!