মঙ্গলবার, অক্টোবর ৪, ২০২২

কলারোয়া নিউজ

প্রধান ম্যেনু

সাতক্ষীরা, দেশ ও বিশ্বের সকল সংবাদ, সবার আগে

১০ দিনের রিমান্ড শেষে রিজেন্টের সাহেদ সাতক্ষীরা কারাগারে

১০ দিনের রিমান্ড শেষে সাহেদ করিমকে সাতক্ষীরা আদালতের মাধ্যমে জেলা কারাগারে পাঠানো হয়েছে।

বুধবার বেলা ১১টার দিকে কড়া নিরাপত্তা প্রহরায় তাকে সাতক্ষীরার আমলী আদালত-৩ এ নেয়া হয়।
বিচারক রাজীব রায় তাকে সাতক্ষীরা কারাগারে পাঠানোর আদেশ দেন।

এর আগে রিমান্ডের চতুর্থ দিনে রিজেন্ট হাসপাতালের চেয়ারম্যান মো. সাহেদ ওরফে সাহেদ করিমকে ২৯ জুলাই খুলনার র‌্যাব কার্যালয় থেকে তার গ্রেপ্তারস্থল সাতক্ষীরার সীমান্তবর্তী শাখরা-কোমরপুর এলাকায় নিয়ে যাওয়া যায়। বিকেলে তাকে লাবণ্যবতি নদীর ওপর নির্মিত বেইলি ব্রিজের ওপর মিনিট দশেক রাখা হয়। পরে তাকে আবারো খুলনায় র‌্যাব-৬ এর সদর দপ্তরে নিয়ে যাওয়া হয়।

তবে তদন্তের স্বার্থে রিমান্ডের প্রাপ্ত তথ্য না জানানো হলেও দায়িত্বশীল সূত্রে জানা গেছে, সাহেদ করিম মাঝে মাঝে খুব ক্ষ্যাপাটে আচরণ করছেন। আবার কখনো কখনো ঔদ্ধত্যপূর্ণ আচরণ করছেন। তবে গ্রেপ্তার হওয়ার আগে সাতক্ষীরায় তার অবস্থান ও অস্ত্রসহ বিভিন্ন বিষয়ে তিনি গুরুত্বপূর্ণ বিষয়ে তিনি তথ্য দিয়েছেন।

এ বিষয়ে মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা র‌্যাব-৬ সাতক্ষীরা ক্যাম্পের এসআই রেজাউল ইসলাম জানান, গুরুত্বপূর্ণ তথ্য পাওয়া গেছে, তবে অধিকতর তদন্তের স্বার্থে প্রকাশ করা সমীচীন হবেনা।

দেবহাটা উপজেলার কোমরপুর সীমান্তে অস্ত্র ও গুলিসহ গ্রেপ্তার হওয়া রিজেন্ট হাসপাতালের চেয়ারম্যান মো. সাহেদ ওরফে সাহেদ করিমকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য গত রোববার ১০ দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেন সাতক্ষীরার আমলী আদালত-৩ এর বিচারক (ভার্চুয়াল) রাজীব রায়। মামলার তদন্তকারি কর্মকর্তা খুলনা র‌্যাব-৬ এর সাতক্ষীরা ক্যাম্পের উপপরিদর্শক রেজাউল করিমের ১০ দিনের রিমান্ড আবেদন শুনানী শেষে এ আদেশ দেন। পরের দিন সোমবারই তাকে ঢাকা থেকে খুলনা র‌্যাব কার্যালয়ে নিয়ে আসা হয়।

এর আগে ১৫ জুলাই বুধবার ভোরে সাতক্ষীরার দেবহাটা উপজেলার কোমরপুর সীমান্তের লাবন্যবতী নদীর উপর নির্মিত বেইলী ব্রীজ এর নীচ থেকে সাহেদকে বোরখা পরিহিত অবস্থায় গ্রেপ্তার করে র‌্যাব। এ সময় তার কাছ থেকে একটি পিস্তল ও তিন রাউন্ড গুলি উদ্ধার করা হয়। এরপর তাকে হেলিকপ্টারে করে ঢাকায় নিয়ে যাওয়া হয়। ওই দিন রাতে র‌্যাব-৬ এর সিপিসি-১ এর ডিএডি নজরুল ইসলাম বাদী হয়ে ১৯৭৮ সালের আর্মস অ্যাক্টের ১৯-এ উপধারা এবং ১৯৭৪ সালের বিশেষ ক্ষমতা আইনের ২৫ এর বি/এ ধারায় দেবহাটা থানায় একটি মামলা(৫নং) করেন। মামলায় সাহেদ করিমসহ তিনজনকে আসামী করা হয়।

একই রকম সংবাদ সমূহ

কালিগঞ্জে পুলিশের অভিযানে স্বর্ণালংকার ও নগদ টাকা উদ্ধারসহ আটক-১

সাতক্ষীরার কালিগঞ্জের বিষ্ণুপুর ইউনিয়নের মুকুন্দমধুসূদনপুর গ্রামের আব্দুর রাজ্জাক সানার বাড়িতে গত ২৪বিস্তারিত পড়ুন

পাগলা মসজিদের দানবাক্সে ১৫ বস্তা টাকা

কিশোরগঞ্জের পাগলা মসজিদের দানবাক্স খোলা হয়েছে। এবার ২ মাস ২৯ দিন পরবিস্তারিত পড়ুন

সাতক্ষীরায় ভবনের লবনাক্ততা দূর করার উপায় নিয়ে কর্মশালা অনুষ্ঠিত

সাতক্ষীরায় ভবনের লবনাক্ততা দূর করার উপায় নিয়ে এক কর্মশালা অনুষ্ঠিত হয়েছে। শুক্রবারবিস্তারিত পড়ুন

  • আশাশুনি কৃষি কর্মকর্তাদের সমন্বয় সভা অনুষ্ঠিত
  • নিত্যপণ্যের দামের ঊর্ধ্বগতিতে দিশেহারা সাধারণ মানুষ, বিপাকে নিম্নবিত্তরা
  • উন্নয়ন অব্যাহত রাখতে শেখ হাসিনাকে ক্ষমতায় আনতে হবে : প্রতিমন্ত্রী স্বপন ভট্টাচার্য্য
  • নড়াইলের মধুমতীতে ভাঙনের মুখে সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়
  • জেলা পর্যায়ে শ্রেষ্ঠ কলারোয়ার সহকারী শিক্ষা অফিসার হুমায়ুন কবির ও শ্রেষ্ঠ কাব শিক্ষক অনুপ কুমার ঘোষ
  • আশাশুনির তোহিদ মুক্তিযোদ্ধা জিয়াউর রহমান হলের ছাত্রলীগের সহ-সম্পাদক
  • আশাশুনিতে ভ্রাম্যমান আদালতে ৩ সার ব্যবসায়ীকে জরিমানা
  • সাতক্ষীরা জেলা জার্নালিস্ট এসোসিয়েশনের তালা উপজেলা শাখার কমিটি গঠন
  • ট্রেনে কাটা পড়ে বালিয়াডাঙ্গা বাজার ব্যবসায়ীর মৃত্যু
  • সাতক্ষীরায় বাংলাদেশ মহিলা পরিষদের উদ্যোগে মানববন্ধন ও সম্প্রীতি সভা অনুষ্ঠিত
  • সাতক্ষীরায় বিশ্ব হার্ট দিবস উপলক্ষে বর্ণাঢ্য র‍্যালি ও সেমিনার
  • তালায় ব্রী ধান ৭৫ জাতের আগাম রোপণে সাফল্য পেয়েছে কৃষকেরা
  • error: Content is protected !!