রবিবার, জানুয়ারি ২৩, ২০২২

কলারোয়া নিউজ

প্রধান ম্যেনু

সাতক্ষীরা, দেশ ও বিশ্বের সকল সংবাদ, সবার আগে

বেনাপোল বন্দরের পুরো এলাকা আসছে সিসি ক্যামেরার আওতায়

বেনাপোল বন্দর স্থাপনের পর এই প্রথম ব্যবসায়ীদের দাবির মুখে বন্দরে আমদানি পণ্যের নিরাপত্তায় সিসি ক্যামেরা স্থাপনের কাজ শুরু হয়েছে। ১৫ কোটি টাকা ব্যয়ে পুরো বন্দর এলাকায় ৩৭৫টি সিসি ক্যামেরা বসানোর কাজে ব্যস্ত সময় পার করছেন শ্রমিকেরা।

দীর্ঘদিন পরে হলেও সিসি ক্যামেরা স্থাপনে খুশি ব্যবসায়ীরা।

বন্দর কর্তৃপক্ষ বলছেন, ‘সিসি ক্যামেরা যেমন বন্দরের নিশ্চিদ্র নিরাপত্তা নিশ্চিত করবে তেমনি পণ্য আমদানি থেকে শুরু করে খালাস পর্যন্ত বাণিজ্যক কার্যক্রম পুরোটা বন্দরের নজরদারিতে থাকবে।’

জানা যায়, ১৯৭২ সালের শুরুর দিকে বেনাপোল স্থলবন্দর দিয়ে প্রতিবেশী দেশ ভারতের সাথে আমদানি-রফতানি বাণিজ্যিক যাত্রা শুরু। দেশের স্থলপথে যে বাণিজ্য হয় তার ৭০ শতাংশ হয়ে থাকে ভারতের সাথে। তবে নিরাপত্তার সার্থে বেনাপোল কাস্টমস, ইমিগ্রেশনসহ সরকারি-বেসরকারি বিভিন্ন প্রতিষ্ঠান অনেক আগেই সিসি ক্যামেরার আওতায় আসলেও সবচেয়ে গুরুত্ব বহন করে যে স্থলবন্দর সেই বন্দরটি এতদিন আসেনি সিসি ক্যামেরার আওতায়।

এতে বন্দর থেকে পণ্য চুরি, মাদক পাচার, রহস্যজনক অগ্নিকাণ্ড, চোর সিন্ডিকেটের সদস্যদের হাতে বন্দরের নিরাপত্তা কর্মী হত্যাসহ নানান অপ্রীতিকর ঘটনা ঘটে আসছিল। এতে ব্যবসায়ীদের ক্ষোভ থাকলেও কেবল প্রতিশ্রুতির মধ্যে এতদিন সীমাবদ্ধ ছিল সিসি ক্যামেরা স্থাপনের কাজ।

অবশেষে এবার বন্দরের কিছু দায়িত্বশীল কর্মকর্তাদের হস্তক্ষেপে সেই অপেক্ষার অবসান হচ্ছে। বন্দরের বাইপাস সড়ক, পণ্যগার, ভারতীয় ট্রাক ও চ্যাচিজ টার্মিনাল, আন্তর্জাতিক বাস টার্মিনাল, ঢাকা-কলকাতা মহাসড়ক সহ বন্দরের গুরুত্বপূর্ণ স্থাপনায় বসছে ৩৭৫টি আধুনিক মানের সিসি ক‍্যামেরা।

আমদানিকারক পিয়াস ইন্টারন্যাশনালের স্বত্বাধিকারী জাহাঙ্গীর হোসেন জানান, ‘বন্দর থেকে আমদানি পণ্য চুরি হয়ে যাওয়ায় অনেক ব্যবসায়ীরা এই পথে আমদানি বন্ধ করেছেন। আগে থেকে সিসি ক্যামেরা থাকলে এমন চুরি হতো না।’

বেনাপোল স্থলবন্দরের উপসহকারী প্রকৌশলী (বিদ্যুৎ) খোরশেদ আলম জানান, ‘বেনাপোল স্থলবন্দরে প্রাথমিক অবস্থায় মাটির নিচ দিয়ে ক্যাবল ও প্লার বসানোর কাজ চলছে। ৬ থেকে ৮ মাসের মধ্যে সিসি ক্যামেরা বসানোর সব কাজ শেষ হবে।’

বেনাপোল বন্দরের উপপরিচালক (ট্রাফিক) মামুন কবীর তরফদার বলেন, ‘ব্যবসায়ীদের দীর্ঘদিনের দাবি ছিল বন্দরে সিসি ক্যামেরা লাগানোর। এখন তা স্থাপনের কাজ চলমান। সিসি ক্যামেরা যেমন বন্দরের নিরাপত্তা নিশ্চিত করবে তেমনি পণ্য আমদানি থেকে শুরু করে খালাস পর্যন্ত বাণিজ্যক কার্যক্রম পুরোটা বন্দরের নজর দারিতে থাকবে।’

একই রকম সংবাদ সমূহ

শার্শায় ইজিবাইক ছিনতাই করে চালককে হত্যায় জড়িত ৩ আসামি আটক

যশোরের শার্শায় সোলায়মান হোসেন (শাকিব) হত্যার ৩ আসামিকে আটক করেছে পুলিশ ব‍্যুরোবিস্তারিত পড়ুন

শার্শায় মাস্ক না পরায় ৫ জনকে জরিমানা

যশোরের শার্শায় মাস্ক না পরায় ৫ জনকে জরিমানা করেছেন ভ্রাম্যমাণ আদালত। ওমিক্রনবিস্তারিত পড়ুন

পেন ফাউন্ডেশনের উদ্যোগে নামীয় ব্যবসার উপকরণ বিতরণ

অতি দরিদ্রদের ক্ষমতায়ন কর্মসূচীর আওতায় স্বেচ্ছাসেবী সংস্থা পেন ফাউন্ডেশনের উদ্যোগে হতদরিদ্র, নির্যাতিতা,বিস্তারিত পড়ুন

  • রাজগঞ্জে শীতকালীন ক্রীড়া প্রতিযোগিতায় শহীদ স্মরণী ঝাঁপা স্কুল চ্যাম্পিয়ন
  • শার্শায় চালককে হত্যা করে ইজিবাইক ছিনতাই
  • রাজগঞ্জ হাইস্কুলের ৭৬তম প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী উদযাপন
  • বেনাপোল বন্দরে আমদানিকৃত পন্যবাহী ট্রাক থেকে হেলপারের লাশ উদ্ধার
  • রাজগঞ্জ ৫০শয্যা সরকারি হাসপাতাল নির্মাণে জমিদাতা পরিবারের প্রতি শুভেচ্ছা ও দোয়া কামনায় অনুষ্ঠান
  • রাজগঞ্জের মদনপুরে ‘কলাপাতায় ভাত খেয়ে’ ঐতিহ্য ফেরানোর চেষ্টা!
  • রাজগঞ্জে এক কৃষক ও এক গৃহবধূর মৃত্যু
  • দাম কমে যাওয়ায় রাজগঞ্জে পান চাষীরা হতাশ
  • রাজগঞ্জের চালুয়াহাটি ইউনিয়নে প্রতিমন্ত্রী স্বপন ভট্টাচার্য্যের পক্ষে কম্বল বিতরন
  • শার্শার চালিতাবাড়ীয়া গ্রামে গাছ থেকে পরে আহত ব্যক্তির মৃত্যু
  • শার্শায় আগুনে পুড়ে মৃত্যুর সঙ্গে পাঞ্জা লড়ছে অসহায় এক গৃহবধূ
  • মণিরামপুরের রোহিতায় প্রতিমন্ত্রী স্বপন ভট্টাচার্য্যের পক্ষে কম্বল বিতরণ
  • error: Content is protected !!