সোমবার, জানুয়ারি ২৭, ২০২০

কলারোয়া নিউজ

প্রধান ম্যেনু

সাতক্ষীরার সর্বাধুনিক অনলাইন পত্রিকা

ভারতের সাবেক অর্থমন্ত্রী অরুণ জেটলি মারা গেছেন

ভারতের সাবেক অর্থমন্ত্রী ও ক্ষমতাসীন বিজেপি দলের প্রবীন রাজনীতিক অরুণ জেটলি মারা গেছেন। দীর্ঘদিন ধরে অসুস্থ থাকার পর শনিবার দিল্লির ‘অল ইন্ডিয়া ইনস্টিটিউট অব মেডিকেল সায়েন্স (এআইআইএমএস)’ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তার মৃত্যু হয়। মৃত্যুর সময় তার বয়স ছিলো ৬৬ বছর।
ভারতীয় সংবাদ সংস্থা এএনআই তার মৃত্যুর খবর নিশ্চিত করেছে। গত দু’বছর ধরেই তিনি বেশ শারীরিক অসুস্থতায় ভূগছিলেন। শ্বাসকষ্টের কারণে গত ৯ আগস্ট থেকে তাকে লাইফ সাপোর্টে রাখা হয়।

২০১৮ সালে তার কিডনি প্রতিস্থাপন করা হয়েছিলো। এরপর থেকেই অনেকটা আড়ালে চলে যান তিনি। এর আগে ২০১৪ সালে ডায়াবেটিসের কারণে শরীরের ওজন বেড়ে যাওয়ায় ব্যারিয়েট্রিক সার্জারিও হয়েছিলো তার। মোদি সরকারের প্রথম মেয়াদে কেন্দ্রীয় অর্থমন্ত্রীর দায়িত্ব পালণ করেছিলেন তিনি। পাঁচ বছর অর্থ ও প্রতিরক্ষামন্ত্রীর দায়িত্ব সামলানোর পর অসুস্থতার কারণে নিজেই মোদীর এবারের সরকারে না থাকার ইচ্ছা জানিয়েছিলেন তিনি। একই কারণে নির্বাচনও করেননি।

অসুস্থতার কারণে মোদীর বিগত সরকারের পররাষ্ট্রমন্ত্রী সুষমা স্বরাজও এবারের সরকারে থাকেননি। সম্প্রতি তারও মৃত্যু ঘটে।

বিজেপি নেতৃত্বাধীন অটল বিহারি বাজপাইর সরকারেও মন্ত্রী ছিলেন পেশায় আইনজীবী অরুণ জেটলি।

ভোটের রাজনীতিতে অসফল হলেও মোদীর সরকারে নানা সিদ্ধান্ত গ্রহণ এবং জোটের রাজনীতিতে ভূমিকার জন্য অরুণ জেটলি ছিলেন গুরুত্বপূর্ণ।

অসুস্থ হয়ে হাসপাতালে ভর্তির পর তাকে দেখতে গিয়েছিলেন ভারতের রাষ্ট্রপতি রামনাথ কোবিন্দ, প্রধানমন্ত্রী মোদী, স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী ও বিজেপি সভাপতি অমিত শাহ।

অরুণ জেটলির জন্ম ১৯৫২ সালের ২৮ ডিসেম্বর নয়া দিল্লিতে। তার বাবা মহারাজ কিষাণ জেটলিও ছিলেন একজন আইনজীবী।

হিসাব বিজ্ঞানে পড়াশোনার পর দিল্লি ইউনিভার্সিটি থেকে এলএলবি ডিগ্রি নেন অরুণ জেটলি। অখিল ভারতীয় বিদ্যার্থী পরিষদের নেতা ছিলেন তিনি; দিল্লি ইউনিভার্সির ছাত্র সংসদের সভাপতিও ছিলেন।

ছাত্র সংগঠনে নেতৃত্ব দেওয়ার পর গত শতকের ৮০ দশকে বিজেপিতে সক্রিয় হন অরুণ জেটলি। ১৯৯১ সাল থেকে তিনি দলের কেন্দ্রীয় কার্যনির্বাহী কমিটিতে ছিলেন।

১৯৯৯ সালে বাজপাইর সরকারে তথ্য প্রতিমন্ত্রীর দায়িত্ব পান অরুণ জেটলি; পরে আইন মন্ত্রণালয়ের দায়িত্বও তার উপর চেপেছিল।

কংগ্রেস আমলে ২০০৯ থেকে ২০১৪ সাল পর্যন্ত রাজ্যসভায় বিরোধীদলীয় নেতার দায়িত্ব পালন করেন তিনি।

অরুণ জেটলি বিয়ে করেন কাশ্মীরের সাবেক অর্থমন্ত্রী গিরিধারী লাল ডোগরার মেয়ে সঙ্গীতাকে। তাদের দুই ছেলে-মেয়েও আইনজীবী।

সূত্র: টাইমস অব ইন্ডিয়া

একই রকম সংবাদ সমূহ

প্রাণঘাতী করোনার ঝুঁকিতে আছে বাংলাদেশও

চীনের পর প্রাণঘাতী রোগ ‘করোনা ভাইরাস’ ছড়িয়ে পড়েছে বিশ্বের বেশবিস্তারিত পড়ুন

করোনা ছড়িয়েছে ১২ দেশে, ৬ কোটি মানুষের মৃত্যুর শঙ্কা

চীনে মহামারী রূপ নেয়া করোনা ভাইরাস ১২টি দেশে ছড়িয়েছে পড়েছে।বিস্তারিত পড়ুন

হোয়াইটওয়াশ এড়াতে কাল মাঠে নামবে বাংলাদেশ দল

বাংলাদেশ-পাকিস্তান টি-টোয়েন্টি সিরিজে সোমবার (২৭ জানুয়ারি) তিন ম্যাচ সিরিজের তৃতীয়বিস্তারিত পড়ুন

  • যেভাবে ভ্রমণ করবেন ঢাকা-কলকাতার রুটে মৈত্রী এক্সপ্রেস ট্রেনে
  • কোয়ালাকে দুধ পান করাচ্ছে শিয়াল, ভিডিও ভাইরাল
  • ৩ হাজার বছর আগের মমির ‘কণ্ঠস্বর’ বের করল বিজ্ঞানীরা!
  • কতটা ক্ষতিকর করোনা ভাইরাস?
  • দফায় দফায় বিস্ফোরণে কেঁপে উঠল আসাম
  • ঘোড়ায় চড়ে হাতে তলোয়ার নিয়ে বিয়ে করতে গেলেন দুই বোন!
  • ৩৩৮ ফুটের দানব আকৃতির পিৎজা! (ভিডিও)
  • বিয়ে এড়াতে চুরি করে পুলিশ হেফাজতে যুবক!
  • শক্তিশালী ভুমিকম্পে কেঁপে উঠলো তুরস্ক, নিহত ১৪
  • বাংলাদেশ যুবাদের গ্রুপ চ্যাম্পিয়ন করে দিল বৃষ্টি
  • হারের হতাশায় বাংলাদেশের শুরু
  • পাকিস্তানের মাটিতে বেজে উঠল ‘আমার সোনার বাংলা’