শুক্রবার, অক্টোবর ১৮, ২০১৯

কলারোয়া নিউজ

প্রধান ম্যেনু

সাতক্ষীরার সর্বাধুনিক অনলাইন পত্রিকা

মালামাল সবরবরাহে

সাতক্ষীরা মেডিকেল কলেজে কোটি টাকা আত্মসাতের অভিযোগে ৯ চিকিৎককে দুদকে তলব

সাতক্ষীরা মেডিকেল কলেজে সিন্ডিকেট করে পরস্পর যোগসাজশে দরপত্রে মালামালের উচ্চ মূল্য দেখিয়ে নিন্মমানের মালামাল সবরবরাহ করে কোটি কোটি টাকা আত্মসাতের অভিযোগে ক্রয় কমিটির সভাপতি ডা. রুহুল কুদ্দুসসহ ৯ চিকিৎককে তলব করেছে দুর্নীতিদমন কমিশন (দুদক)।

ইতোমধ্যে দুদকে হাজিরাও দিয়েছেন ওই চিকিৎসকরা।

গত ২৬ আগস্ট ২০১৯ তারিখে ০০.০১. ০০০০. ৫০১.১০১. ০৮৩.১৮. ৩২৮৮২ নং স্মারকে দুর্নীতি দমন কমিশন প্রধান কার্যালয় ঢাকার (বি:অনু: ও তদন্ত-১) উপ-পরিচালক মো. সামছুল আলম স্বাক্ষরিত একপত্রে উক্ত ৯ চিকিৎসকে দুদকের প্রধান কার্যালয়ে হাজির হয়ে বক্তব্য উপস্থাপনের নির্দেশ দেওয়া হয়।

উক্ত পত্রে উল্লেখ করা হয়েছে সম্প্রতি সাতক্ষীরা মেডিকেল কলেজে বিভিন্ন সরঞ্জাম ক্রয়ের জন্য ডা. রুহুল কুদ্দুসকে সভাপতি করে ৯ সদস্যের একটি ক্রয় কমিটি গঠন করা হয়। কিন্তু ক্রয় কমিটি দরপত্রে মালামালের উচ্চ মূল্য দেখিয়ে নিন্মমানের মালামাল সরবরাহ পূর্বক কোটি কোটি টাকা আত্মসাতের অভিযোগ ওঠে ওই কমিটির বিরুদ্ধে।

এঘটনায় দুদক অভিযোগের সুষ্ঠু অনুসন্ধানের স্বার্থে তাদের স্ব স্ব বক্তব্য শ্রবণের জন্য দুদক কার্যালয়ে হাজির হওয়ার নির্দেশ দেন।

বাকী চিকিৎসকরা হলেন- মেডিকেল কলেজের সহকারী অধ্যাপক (শিশু) ডা. শামছুর রহমান, আরপি (মেডিসিন) ডা. মো. খায়রুল বাসার, জুনিয়র কনসালটেন্ট (অর্থো. সার্জারী) ডা. প্রবীর কুমার দাশ, সহকারী অধ্যাপক (ইএনটি) ডা. নারায়ন প্রসাদ স্যানাল, সহকারী প্রকৌশলী নিমিউ, ঢাকার এএইচএম আব্দুল কুদ্দুস, স্টোর কিপার আহসান হাবীব, সহযোগী অধ্যাপক মেডিসিন ডা. কাজী আরিফ আহমেদ ও সাবেক তত্ত্বাবধায়ক ডা. মো. শাহাজান আলী।

এদিকে, ডা. রুহুল কুদ্দুস একাধারে ৫টি কমিটির সভাপতির দায়িত্ব পালন করছেন। একজন ব্যক্তি কিভাবে ৫টি দায়িত্ব পালন করতে পারেন তা নিয়ে সাতক্ষীরার সচেতন মহলে রয়েছে নানা জল্পনা কল্পনা। কমিটিগুলো হলো ক্রয় কমিটি, মূল্যায়ন কমিটি, উন্যমুক্তা কমিটি, সারভে কমিটি, বাজার দর বাচাই-বাছাই কমিটি। ফলে মালামাল যে মূল্যেই ক্রয় করা হোক না কেন জবাব দিহিতার কোন জায়গা থাকলো না। কারণে যে খানে জাবাব দিহি করতে হবে সেখানের সভাপতি ডা. রুহুল কুদ্দুস নিজেই।

এবিষয়ে কমিটির সভাপতি ডা. রুহুল কুদ্দুস বলেন, এধরনের অভিযোগ ভিত্তিহীন। ওই প্যাক্স মেশিনের দাম অনেক বেশি। আমরা একটু কম মূল্যের ক্রয় করেছি। জাপানের প্রকৌশলীরা ইতোমধ্যে সেটি স্থাপনের কাজ শুরু করে দিয়েছে।

অন্যদিকে, মেডিকেল কলেজের সরঞ্জাম ক্রয়ের ঘটনায় দুর্নীতির ঘটনার তীব্র নিন্দা জানিয়েছেন বেতনা বাঁচাও আন্দোলন কমিটিসহ বিভিন্ন সামাজিক সংগঠনের নেতৃবৃন্দ। তারা দ্রুত এঘটনার সাথে জড়িতদের বিচার দাবি করেছেন। প্রয়োজন তারা দুর্নীতির বিরুদ্ধে কঠোর আন্দোলনের মাধ্যমে তাদের বিচারের কাঠ গড়ায় দাঁড় করানো ঘোষণা দেন।

খবর দৈনিক পত্রদূতের সৌজন্যে।

একই রকম সংবাদ সমূহ

ভুক্তভোগীর বড়ভাই সেজে ঘুষখোর ভূমি কর্মকর্তাকে ধরলেন সাতক্ষীরার ডিসি

ভুক্তভোগীর বড় ভাই সেজে সাতক্ষীরা জেলা প্রশাসক এসএম মোস্তফা কামালবিস্তারিত পড়ুন

ভোমরা সীমান্তে ২০হাজার পিস ইয়াবা ফেলে পালালো চোরাকারবারী

সাতক্ষীরার ভোমরা সীমান্তে ২০ হাজার পিস ইয়াবা ফেলে পালালো চোরাকারবারী।বিস্তারিত পড়ুন

সাতক্ষীরা পোস্ট অফিসে ফাঁদে ফেলে টাকা হাতিয়ে নিচ্ছে প্রতারক চক্র!

সিসি ক্যামেরা থাকা স্বত্বেও প্রতারণার ফাঁদে ফেলে এক দুস্থ নারীরবিস্তারিত পড়ুন

  • শুরু হচ্ছে ‘ক্লিন সাতক্ষীরা গ্রীন সাতক্ষীরা’ বাস্তবায়নে স্কুল বিতর্ক
  • সাতক্ষীরা জেলাব্যাপী গ্রেফতার ২৪ ।। ফেন্সিডিল, গাঁজা উদ্ধার
  • স্বাস্থ্য খাতে দুর্নীতি: সাতক্ষীরা মেডিকেলের হালিমসহ ৯জনকে দুদকে তলব
  • সাতক্ষীরা বাইপাস সড়ক উদ্বোধন করলেন প্রধানমন্ত্রী
  • বর্ণাঢ্য আয়োজনে সাতক্ষীরা মেডিকেল কলেজের এস.এম.সি ডে উদযাপন
  • সাতক্ষীরায় বিশ্ব খাদ্য দিবস পালিত
  • সাতক্ষীরায় গ্রামীন নারী দিবসে র‌্যালী ও পথসভা
  • সাতক্ষীরা পৌরসভার ম্যাকাডাম পিচের রাস্তা নির্মাণ কাজে উদ্বোধন
  • সবুজ পরিবেশ আন্দোলন সাতক্ষীরা জেলার আয়োজনে বৃক্ষরোপণ
  • কলারোয়ায় অনুর্ধ ১৮বয়স ভিত্তিক ফুটবল প্রশিক্ষনের উদ্বোধন
  • সাতক্ষীরায় জেলা প্রশাসকের ‘ক্লিন শহরে’ দুই পৌরসভার ময়লার স্তুপ
  • দেবহাটায় প্রেমিকাকে বাড়িতে নিয়ে বন্ধুদের দিয়ে ধর্ষণ ॥ প্রেমিকসহ গ্রেফতার ২